Mouud

বিএনপির চেয়ারপারসন খালেদা জিয়া ও তাঁর পরিবার বিদেশে বিলিয়ন বিলিয়ন ডলার পাচারের বিষয়টি প্রমাণ করতে না পারলে সরকারের পদত্যাগ দাবি করেছেন দলটির স্থায়ী কমিটির সদস্য মওদুদ আহমদ। তিনি বলেন, ‘আমি বলব যদি বিদেশে অর্থ পাচার প্রমাণ করতে না পারেন তাহলে এ সরকারকে পদত্যাগ করতে হবে।

খালেদা জিয়া সম্পর্কে মিথ্যা কাল্পনিক কথা বলে দেশের সংকটের দিকে থেকে মানুষের দৃষ্টি অন্যদিকে ফেরানোর অপচেষ্টা চলছে। ১২০০ কোটি ডলারের কথা এত দিন বলেননি কেন? বাংলাদেশের মানুষ এ ধরনের কথা বিশ্বাস করে না। ’

 আজ রবিবার তৎকালীন পূর্ব পাকিস্তানের মুখ্যমন্ত্রী এবং সাবেক প্রধানমন্ত্রী আতাউর রহমান খানের মৃত্যুবার্ষিকী উপলক্ষে আয়োজিত এক আলোচনা সভায় তিনি এসব কথা বলেন।

বিএনপির এই নেতা বলেন, সরকারের জনপ্রিয়তা এখন শূন্যের কোঠায়। সরকার ভারসাম্য হারিয়ে ফেলেছে। সরকার উন্নয়নের কথা বলে কিন্তু গণতন্ত্রের কথা বলে না। গণতন্ত্রের কথার নামে একতন্ত্রের কথা বলে। অন্য দল বা অন্য শ্রেণির কথা সরকার বলে না। উন্নয়নের পূর্বশর্ত সুশাসন।

সংসদে, বিচার বিভাগে কোথাও সুশাসন নেই। এ সরকারের ব্যর্থতা হলো সুশাসন প্রতিষ্ঠা করতে না পারা।

 সদ্য পদত্যাগ করা প্রধান বিচারপতি সুরেন্দ্র কুমার সিনহার প্রসঙ্গ টেনে মওদুদ বলেন, প্রধান বিচারপতিকে সরে যেতে হয়েছে, এ ধরনের ঘটনা আগে কখনো ঘটেনি। প্রধান বিচারপতি বিচার বিভাগকে স্বাধীন করতে চেয়েছিলেন বলে এভাবে তাঁকে সরে যেতে হয়েছে। অথচ সরকার বলে বিচার বিভাগ স্বাধীন।  

তিনি অভিযোগ করেন, বর্তমান বিচারপতিরা ভয়ভীতি নিয়ে বিচারকাজ পরিচালনা করছেন। রায় দিলে তাঁদের পরিণতি প্রধান বিচারপতির মতো হয় কি না, তা নিয়ে তাঁরা শঙ্কিত।

সভায় অন্যদের মধ্যে বক্তব্য রাখেন বিএনপির চেয়ারপারসন কাউন্সিলের উপদেষ্টা জয়নাল আবেদীন ফারুক, জেলা বিএনপির সভাপতি দেওয়ান মো. সালাউদ্দিন, সাংবাদিক আমানউল্লাহ কবির, ইব্রাহিম রহমান প্রমুখ।



উত্তরানিউজ২৪ডটকম / টি/কে

recommend to friends
  • gplus

পাঠকের মন্তব্য

ফেসবুকে আমরা