82054_cid সিআইডি সাইবার ইউনিট

পুলিশের অপরাধ তদন্ত বিভাগের (সিআইডি) অধীনে সাইবার পুলিশ ইউনিটের অনুমোদন দিয়েছেন প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা। 

গতকাল বৃহস্পতিবার (১১ অক্টোবর) বিকেলে প্রধানমন্ত্রী ‘সাইবার পুলিশ সেন্টার’ নামে পুলিশের নতুন এই ইউনিটের অনুমোদন দেন।

সিআইডির অর্গানাইজড ক্রাইমের সহকারি পুলিশ সুপার (মিডিয়া) শারমিন জাহান  গণমাধ্যমকর্মীদের এ তথ্য নিশ্চিত করেছেন।

তিনি বলেন, ‘পূর্ণাঙ্গ সাইবার ক্রাইম ইউনিট গঠনের ফলে এ সংক্রান্ত মামলাগুলো তদন্তে গতি পাবে। আগে এমন ইউনিট ছিলো না। এটি সারা দেশে এ সংক্রান্ত বিষয়ে কাজ করবে।’

সাইবার ইউনিটের দায়িত্বে থাকবেন একজন ডিআইজি। মোট জনবল থাকবে ৩৪২। তারা দেশব্যাপী কাজ করবেন। আর তাদের যানবাহন থাকবে ৪৯টি।

মূলত ডিজিটাল নিরাপত্তা আইনের আওতায় সংঘটিত অপরাধ দমন, তদন্ত, পর্যবেক্ষণ করতে এই ইউনিট গঠন হয়েছে বলে জানা গেছে।

ইউনিট প্রধান থাকবেন একজন উপ-মহাপরিদর্শক। তার অধীনে থাকবেন ২ অতিরিক্ত উপমহাপরিদর্শক, ৩ বিশেষ পুলিশ সুপার, ৬ অতিরিক্ত পুলিশ সুপার, ১৮ সহকারী পুলিশ সুপার, ৪৫ পরিদর্শক, ১৪০ জন উপ পরিদর্শক, ১০জন সহকারি উপ-পরিদর্শক ও ৭৫ জন কনস্টেবল।

উল্লেখ্য, আইজিপি থেকে কনস্টেবল পর্যন্ত পুলিশের বর্তমানে জনবল আছে মোট ২ লাখ ৯ হাজার ৮১০। সাইবার পুলিশ সেন্টারের ৩৪২ মিলে মোট জনবল হবে ২ লাখ ১০ হাজার ১৫২।



উত্তরানিউজ২৪ডটকম / জি/তা

recommend to friends
  • gplus

পাঠকের মন্তব্য

ফেসবুকে আমরা