FS

আপেলের চিপস

একে আপনারা প্রাকৃতিকভাবে মিষ্টি স্বাদযুক্ত ফ্রেঞ্চ ফ্রাই ধরে নিতে পারেন। বানানো খুব সহজ। আপেলকে চিপসের মতোই পাতলা চাকতি করে কাটবেন। এগুলোকে দারুচিনি এবং সামান্য ব্রাউন সুগারে মাখিয়ে নিন। এবার উচ্চতাপে ভেজে ফেলুন। খুবই স্বাদের হয়। সেই সঙ্গে মিষ্টিও।

ধুন্দুলের চিপস

পুষ্টিকর এক সবজি। এর স্বাদ যেকোনো মানুষের কাছে উপভোগ্য। প্রথমে খোসা ছাড়িয়ে পাতলা চিপসের মতো করে কাটবেন। এদের শুকনো সুতি কাপড়ের ওপর রেখে দিন। তরলের পরিমাণ কমে যাবে। এবার প্রয়োজনমতো ডিম ফেটে নিন। বেকিং পাউডার কিংবা বেসন দিয়ে ভাজতে হবে। চিপসের উভয়পাশ বাদামি না হয়ে ওঠা পর্যন্ত ভাজতে থাকুন।

বাঁধাকপির চিপস

পাতাবহুল সবজির এক অসাধারণ চিপস। পুষ্টিগুণের কথা নতুন করে বলার প্রয়োজন পড়ে না। শুধু জেনে রাখুন, এটা দিয়েও মজার চিপস হয়। এমনকি সুপারশপ থেকে এক প্যাকেট ‘কেল চিপস’ কিনে খেলেও লাভ আছে। কিন্তু প্যাকেটজাত পণ্য এড়িয়ে যাওয়াই ভালো। তাই বাসায় বানিয়ে ফেলতে পারেন মজার এই খাবার। বাঁধাকপি ছাড়িয়ে তাতে গোলমরিচের গুঁড়া আর লবণ দিয়েই ভেজে চিপস বানিয়ে ফেলতে পারেন।

আলু ভাজা

মনে প্রশ্ন জাগতে পারে, ফ্রেঞ্চ ফ্রাই বাদ দিয়ে আবার কেন আলু ভাজার কথা বলা হচ্ছে? যদি মনে করেন কোনোভাবেই ফ্রেঞ্চ ফ্রাই বাদ দিতে পারবেন না, সে ক্ষেত্রে বাড়িতেই আলুর চিপস বানিয়ে ফেলুন। এটা ফ্রেঞ্চ ফ্রাইয়ের মতো ক্ষতিকর নয়। পাতলা করে আলু কেটে নিন। এগুলো মসলায় মাখিয়ে রোদে শুকাতে দিন। শুকালেই আসলে চিপস হয়ে গেল। যখন মন চাইবে তেলে ভেজে উপভোগ করুন।



উত্তরানিউজ২৪ডটকম / টি/কে

recommend to friends
  • gplus

পাঠকের মন্তব্য

ফেসবুকে আমরা